নোয়াখালীতে সামাজিক দুরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি না মানায় ২৬ প্রতিষ্ঠানকে ২ লাখ ৫৭ হাজার টাকা জরিমানা

নোয়াখালী প্রতিনিধি  –

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জের চৌমুহনী বাজারে সামাজিক দুরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি না মেনে ব্যবসা পরিচালনা করায় ২৬ প্রতিষ্ঠানকে ২ লাখ ৫৭ হাজার টাকা জরিমানা করেছে পৃথক ভ্রাম্যমান আদালত।
বৃহস্পতিবার সকাল থেকে দিনব্যাপী ছয় ভাগে এ ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন, নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট অনামিকা নজরুল, মো. রোকনুজ্জামান খান, এম সাইফুল্লাহ্, মো. রুহুল আমিন, ইমামুল হাফিজ নাদিম ও আসাদুজ্জামান রনি। এসময় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচানায় সহযোগিতা করেন বেগমগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার ডা. আব্দুল কাদের সজীব, জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক মো. কাউছার মিয়া, র‌্যাব ১১ লক্ষীপুরের কোম্পানী কমান্ডার আবু সালেহ, ব্যাটেলিয়ান আনসার ও জেলা পুলিশ।

জেলা প্রশাসক কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, প্রতিনিয়ত জেলায় করোনা সংক্রমণ বাড়ছে। এর মধ্যে বেশি সংক্রমিত হচ্ছে বেগমগঞ্জের চৌমুহনী। দিন দিন সংক্রমণের সংখ্যা বাড়লেও চৌমুহনীর দোকানীরা মুখে মাস্ক, হাতে গ্লাভস ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করছে না এবং সামাজিক দূরত্ব অনুসরণ ছাড়াই ব্যবসায় পরিচালনা করছেন। যার কারণে জেলা প্রশাসনের নির্দেশে চৌমুহনীতে ৬টি গ্রুপে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়। আদালত সংক্রামক রোগ (প্রতিরোধ, নিয়ন্ত্রণ ও নির্মুল) আইন ২০১৮ অনুযায়ী মোট ২৬টি মামলায় বিভিন্ন ব্যবসায়ীদের ২ লক্ষ ৫৭ হাজার টাকা জরিমানা করেন।

জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মো. রোকনুজ্জামান খান ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা ও জরিমানার কথা নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালনে জনস্বার্থে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা অব্যাহত থাকবে।