যৌতুক মামলায় বিজিবি সদস্য রতন কুড়িগ্রাম কারাগারে

মোঃ একরামুল হক বুলবুল,কুড়িগ্রাম
প্রতিনিধি :-

০৫-০৮-১৯ কুড়িগ্রামে যৌতুক মামলায় তিন বছরের সশ্রম কারাদন্ডে দন্ডিত হয়েছেন বিজিবি সদস্য রতন চন্দ্র বর্মন। বিঙ্ঘ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট পবন চন্দ্র বর্মন গত ২৭-১২-২০১৮ ইং তারিখে এই রায় প্রদান করেন। অভিযুক্ত রতন চন্দ্র বর্মন সিলেট- ৫২ বিজিবির সদস্য ছিলেন। তার সিপাহী নম্বর – ৯৭১০০। গত ২৮ জুলাই সদর উপজেলার কাঁঠালবাড়ী এলাকার খালিসা জালপাড়া গ্রামের মৃত দীনেশ চন্দ্র বর্মনের পুত্র শ্রী রতন চন্দ্র বর্মন আত্নসমর্থন করতে আসলে স্রী শ্রীমতি দিতী রায়ের করা যৌতুক মামলায় কুড়িগ্রাম বিঙ্ঘ বিচারক সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট পবন চন্দ্র বর্মন যৌতুক নিরোধ আইন ১৯৮০এর ০৪ ধারায় অভিযোগ দোষী সাব্যস্ত করে তিন বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও ৫ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ২ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ডে দন্ডিত করেন।জানা যায় রতন চন্দ্র বর্মন ২০১৭ সালে সাত লক্ষ যৌতুকের বিনিময়ে একই এলাকার সুনীল চন্দ্র বর্মনের মেয়ে শ্রীমতি দিতী রায়কে বিয়ে করেন। কিছুদিন যেতে না যেতে আবারো দশ লক্ষ টাকার জন্য দিতী রায়কে মারপিট করে বাড়ি থেকে বাহির করে দেয়। পরে দিতী রায় গত ৩/১২/২০১৭ সালে কুড়িগ্রাম আদালতে যৌতুক মামলা দায়ের করেন। যার মামলা নং সিআর – ৩০৭/২০১৭। এরই প্রেক্ষিতে বিঙ্ঘ বিচারক গত ২৭/১২/২০১৮ ইং তারিখে শ্রী রতন চন্দ্র বর্মনকে দোষী সাব্যস্ত করে উপরোক্ত রায় ঘোষনা করেন।।