স্কুলছাত্রী ঝুমুরকে ধর্ষণ করে হত্যাকারী বাহার গ্রেপ্তার..

নোয়াখালী কোম্পানীগঞ্জ:

যে খাল থেকে মাথা পুঁতানো অবস্থায় চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী নাজমুন নাহার ঝুমুরের লাশ উদ্ধার করা হয় ঘটনার দিন সকালে সেই খালের মধ্যে মাছ ধরছিলো বাহার উদ্দিন (৩৫)। ঘটনাচক্রে ঝুমুর আম কুড়ানো শেষে খালের পাশ দিয়ে একা যাচ্ছিল। এসময় ঝুমুরকে একা পেয়ে বাহার তার গতিরোধ করে বাগানে ডুকিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। রক্তাক্ত অবস্থায় ঝুমুর চিৎকার করলে তার মুখ চেপে ধরে খালের মধ্যে মাথা পুঁতে শ্বাসরোধে হত্যা করে বাহার।

সোমবার সকালে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে পুলিশের কাছে এমনই ঘটনার বিবরণ দিয়েছে বাহার। দুপুরে ১৬৪ধারায় আদালতে জবানবন্দীর জন্য বাহারকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত বাহার চরকঁকাড়া ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের কবুতরের বাড়ীর আজিজুল হকের ছেলে।

কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি মো. আসাদুজ্জামান জানান, রবিবার রাতে অভিযান চালিয়ে বাহারকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে শিশু ঝুমুরকে ধর্ষণ ও হত্যার কথা স্বীকার করেছে সে। আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি শেষে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

আর্কাইভ